• বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৫:৫৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম
সুশৃঙ্খল নিয়ম-নীতির নামাজ অন্যায় কাজ থেকে বিরত রাখে মানুষের কৃতকর্ম ও গুনাহের ফল হিসেবে আখ্যা দেয়- বৃষ্টি চেয়ে নামাজ পড়ার নিয়ম বাশফুল থেকে চালের উৎপাদন সম্ভব- বাশ চাল পুষ্টিগুণ অনেক সমীচীন নয় দুনিয়ার গিবত পরকালের আপদ সারাদেশে কমছেই না গরমের তীব্রতা, ফের বাড়ল ‘হিট অ্যালার্ট’–এর মেয়াদ সালমানের বাড়িতে গুলি হামলার ঘটনায় দ্বিতীয় অস্ত্র উদ্ধার গত মঙ্গলবার সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনায় শিল্পী সমিতির দুঃখ প্রকাশ শেষ লিভারপুলের শিরোপা স্বপ্ন এভারটনের মাঠে হেরে প্রায়  এবার চেন্নাইয়ের মাঠেও দুশ্চিন্তা বাড়াচ্ছেন মুস্তাফিজও আমেরিকাকে বেকায়দায় ইরানের হাতে নতুন অস্ত্র, রেহাই পাবে না আমেরিকার ‘অদৃশ্য’ যুদ্ধবিমানও!

নির্বাচনে হস্তক্ষেপ: ট্রাম্পের বিচার অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত

আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ৩৩ Time View
Update : শনিবার, ৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪

২০২০ সালের নির্বাচনে যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্পের হস্তক্ষেপের বিচার অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করেছেন ফেডারেল বিচারক তানিয়া চাটকান। ট্রাম্পের আপিল নিয়ে আদালতে যখন শুনানি চলছিল, তখন এই ঘটনা ঘটে। এই বিচার শুরু হওয়ার কথা ছিল ৪ঠা মার্চ। বিচারক তানিয়া চাটকান শুক্রবার বলেন, সেই বিচার এখন অনির্দিষ্টকাল পর্যন্ত বিলম্বিত করা হয়েছে। ২০২০ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ফল উল্টে দেয়ার চেষ্টা করেছিলেন ট্রাম্প। এ নিয়েই এই মামলা। তার আইনজীবীরা আদালতে যুক্তি তুলে ধরে বলেছেন, ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ফৌজদারি অভিযোগ গঠন করা যাবে না। কারণ, ঘটনার সময় তিনি যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হিসেবে অধিষ্ঠিত ছিলেন। এ খবর দিয়েছে অনলাইন বিবিসি।

২০২০ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিজয়ী হন ডেমোক্রেট দলের জো বাইডেন। তখন নির্বাচনের ফল উল্টে দেয়ার চেষ্টা করেছিলেন ট্রাম্প।

এ অভিযোগে গত বছর নভেম্বরে আগামী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান দলের ফ্রন্টরানার ডনাল্ড ট্রাম্পের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। যখন আপিল প্রক্রিয়া চলমান থাকবে তখন এই মামলাটি কয়েক মাস বিলম্বিত থাকতে পারে। ক্ষমতায় থাকা অবস্থায় প্রেসিডেন্ট বিচার থেকে দায়মুক্তি পান, এই যুক্তি বর্তমানে মার্কিন ফেডারেল আপিলের তিন বিচারকের একটি প্যানেল যাচাইবাছাই করে দেখছে। তাদের এই যাচাইবাছাইয়ের পর রায় হতে পারে আগামী সপ্তাহের শুরুর দিকে। এই মামলাটি মনে করা হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্টেই শেষ হয়ে যাবে। কারণ, সেখানে রক্ষণশীল রিপাবলিকান বিচারকরা ৬-৩ ব্যবধানে সংখ্যাগরিষ্ঠ।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এতে যুক্তরাষ্ট্রের ভবিষ্যত প্রেসিডেন্সির ওপর বড় রকম প্রভাব ফেলতে পারে।
ট্রাম্পের বিরুদ্ধে যে চারটি অভিযোগ আনা হয়েছে তা হলো- যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে প্রতারণার মাধ্যমে ষড়যন্ত্র করা, সরকারি প্রক্রিয়ায় বাধা দেয়ার ষড়যন্ত্র করা, সরকারি প্রক্রিয়ায় একজন কর্মকর্তাকে বাধা দেয়া এবং নাগরিকদের অধিকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা। ডনাল্ড ট্রাম্পের বয়স এখন ৭৭ বছর। বার বার বলে আসছেন তিনি কোনো অন্যায় করেননি। উল্টো রাজনৈতিক কারণে তার বিরুদ্ধে বিচার করা হচ্ছে বলে আইন মন্ত্রণালয় এবং প্রেসিডেন্ট বাইডেন প্রশাসনকে অভিযুক্ত করেছেন।

এ ছাড়া অন্য তিনটি ফৌজদারি মামলার মুখোমুখি তিনি। এর মধ্যে একটি মামলা ২০২০ সালে জর্জিয়া রাজ্যে নির্বাচনের ফল উল্টে দেয়া সংক্রান্ত। অন্য একটি মামলা হলো প্রেসিডেন্টের ক্ষমতা ছেড়ে যাওয়ার সময় গোপনীয় দলিলপত্র সঙ্গে নিয়ে যাওয়া। তৃতীয় মামলা হলো সাবেক পর্নো তারকা স্টর্মি ডানিয়েলকে মুখ বন্ধ রাখার জন্য অর্থ দেয়া। অভিযোগ আছে ওই পর্নো তারকার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে মিলিত হয়েছিলেন ট্রাম্প। কিন্তু ২০১৬ সালে প্রথম নির্বাচনের আগে নিজের আইনজীবীর মাধ্যমে স্টর্মি ডানিয়েলকে বিপুল অংকের অর্থ দিয়ে তার মুখ বন্ধ করিয়েছিলেন ট্রাম্প।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category

ফেসবুকে আমরা